Tag: tmc

‘তিন মাসের মধ্যেই পদক্ষেপ করা হবে’,  ভোটে নিষ্ক্রিয় নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার বার্তা অভিষেকের

প্রশান্ত দাস:  একেবারে রাজকীয় ‘কামব্যাক’ তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দোপাধ্যায়ের। রাজনৈতিক ‘বিরতি’ মিটতেই সোজা একুশে জুলাইয়ের মঞ্চে উপনীত হলেন তৃণমূল সাংসদ অভিষেক বন্দোপাধ্যায়, রাখলেন হাইভোল্টেজ বক্তব্য। একদিকে যেমন নবীন-প্রবীণদের সামঞ্জস্য বিধানের বার্তা দিলেন যুবরাজ, তেমনি অন্যদিকে ভোটে ‘নিষ্ক্রিয়’ নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধেও সুর চড়ালেন। হালকা-মাঝারি বৃষ্টি কোনোরূপ সমস্যার সৃষ্টিই করতে পারলো না অভিষেকের বক্তৃতায়। দুপুর ১২… ...

রক্তে রাঙা একুশে জুলাই শপথের দিন

প্রবীর সাহা, পুরপ্রধান, নববারাকপুর পুরসভা নতুন বাংলা গড়ার শপথে সেদিন যুবনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আহ্বান করলেন যুব সমাজকে ‘মহাকরণ চলো’৷ নিজেদের অধিকারকে প্রতিষ্ঠা করতে অত্যাচারী-বর্বর শাসক গোষ্ঠীকে উপড়ে ফেলতেহবে৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডাকে ১৯৯৩ সালের ২১ জুলাই সকাল থেকে ছাত্র পরিষদের সৈনিকরা ছুটে এসেছিলেন কলকাতার রাজপথে৷ তরুণ সমাজ গর্জে উঠল৷ অপশাসন থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য আন্দোলনে সামিল… ...

২১শে জুলাই ১৩ শহিদের জীবনদান ব্যর্থ হয়নি

স্নেহাশিস চক্রবর্তী, পরিবহণমন্ত্রী, পশ্চিমবঙ্গ সরকার প্রতিবছর ২১ জুলাই, উত্তাল জনসমাগমের সাক্ষী এই শহর কলকাতা৷ শুধু তৃণমূল কংগ্রেস কর্মী নয়, বাংলার আপামর গণতন্ত্রপ্রেমী মানুষের আবেগ মিশে থাকে ২১শে জুলাইয়ের শহিদ স্মরণসভাকে ঘিরে৷ সেই আন্দোলনই গণ আন্দোলনে রূপান্তরিত হয়, যা আমজনতার স্বার্থে পরিচালিত হয়৷ আবার সেই গণ আন্দোলনের রেশ যুগের পর যুগ সমাজে অণুরণন সৃষ্টি করতে পারে,… ...

তৃণমূল কংগ্রেসের নির্বাচনী সাফল্য নিয়ে চারদিকে চলছে জোর চর্চা

বরুণ দাস:  ভাজপা বিরোধী ‘ইন্ডিয়া’ জোটের অন্যতম শরিক বা সঙ্গী হয়েও সেই জোটকেই রাজ্যস্তরে কাঁচকলা দেখিয়ে ২০২৪-এর লোকসভা নির্বাচনে একাই লড়ে ২৯টি আসন ছিনিয়ে নেওয়া কম কথা নয়৷ বাড়ন্ত ভাজপার সঙ্গে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার মধ্যে দাঁড়িয়ে ২২ থেকে ২৯-এ পৌঁছনো মোটেই ছেলেখেলা নয়৷ এজন্য রাজনৈতিক দম থাকা দরকার৷ বিরোধীরা যে যাই বলুন না কেন, সেই প্রয়োজনীয়… ...

শহিদের রক্তেই এসেছিল পরিবর্তন

দেবাশিস কুমার: ১৩ জন তরতাজা যুবকের প্রাণের আত্মবলিদানেই আজ সারা দেশের মানুষ সচিত্র পরিচয়পত্র বা সচিত্র ভোটার কার্ড পেয়েছিল জীবনকে বাজি রেখে৷ এই ২১শে জুলাই আম্দোলনের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কলকাতা পুরসভার এক নম্বর ওয়ার্ডে ২১শে জুলাই শহিদ স্মরণ কর্মসূচির সমর্থনে এক পথসভায় এই আত্মবলিদানের কথা সকলকে স্মরণ করালেন কলকাতা পুরসভার পুরপারিষদ তথা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের… ...

সকলের দল, সকলের নেত্রী

সুমন ভট্টাচার্য ২০২৪-এর ২১শে জুলাই থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিশ্চিতভাবেই ২০২৬-এ বিধানসভা ভোটের দুন্দুভি বাজিয়ে দেবেন। কারণ, ২১শে জুলাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে শুধু শহীদ স্মরণ নয়, বাৎসরিক রাজনৈতিক ইস্তেহার প্রকাশও বটে। অর্থাৎ যে মঞ্চকে ব্যবহার করে তিনি দলের কর্মীদের এবং হয়তো নেতাদের জন্য পরবর্তী রাজনৈতিক লক্ষ্যমাত্রা ঠিক করে দেন। ২১শে জুলাই মানেই জনতার উপচে পড়া ভিড়,… ...

২১ জুলাই একটি আবেগ:  সেদিন এবং আজ

দেবাশিস দাস দিনটা ছিল ১৯৯৩ সালের ২১ জুলাই৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তখন যুব কংগ্রেসের সভাপতি৷ তখনও তৃণমূল কংগ্রেসের জন্ম হয়নি৷ সেদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডাকে হাজার হাজার যুব কংগ্রেস কর্মী-সমর্থক যোগ দিয়েছিল মহাকরণ অভিযানে৷ তাঁদের দাবি ছিল, ভোটার পরিচয়ত্রকেই ভোট দেওয়ার জন্য একমাত্র নথি হিসেবে গণ্য করতে হবে৷ তখনই নির্বাচনে সিপিএমের ‘সায়েন্টিফিক রিগিং’ বন্ধ করা যাবে৷ যুব… ...

শহীদ স্মরণে ২৭ জুলাইয়ের সূচপুর গণহত্যা দিবস, মুখ্যমন্ত্রী মমতার প্রতীক্ষায় বাসাপাড়ার শহীদ স্মরণ মঞ্চ

খায়রুল আনাম: সময়ের আশ্চর্য সমাপতনে বদলে যায় অনেক কিছু। রাজনৈতিক ক্ষেত্রে যা অতি সাধারণ বিষয় হয়ে থাকে। ২১ জুলাইয়ের কলকাতার ধর্মতলায় তৃণমূল কংগ্রেসের শহীদ স্মরণ দিবস। যা নিয়ে শাসক দলের নেতানেত্রীদের দৌড়ঝাঁপের বিরাম নেই। কোন জেলা থেকে দলের কত লোকজন আসবেন, তা নিয়ে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। আর এর পাঁচদিন পরেই রয়েছে নানুরের সূচপুর গণহত্যা দিবস।… ...

নিজের ঘরে হার, সনিয়ার কাছে পরাজয়ের ব্যাখ্যা দিলেন অধীর

দিল্লি:  লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেস তুলনামূলকভাবে ভাল ফল করলেও বাংলায় শোচনীয় ফল কংগ্রেসের। এমনকী, কংগ্রেসের গড় বলে পরিচিত বহরমপুরেও তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী ইউসুফ পাঠানের কাছে হেরে গিয়েছেন কংগ্রেসের পাঁচবারের সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী। এবার নির্বাচনী পরাজয়ের কারণ এবং পশ্চিমবঙ্গ প্রদেশ কংগ্রেস নেতৃত্বে রদবদল নিয়ে সনিয়া গান্ধীর বাসভবনে বৈঠকে বসলেন অধীর রঞ্জন চৌধুরী। সূত্রের খবর, কী কারণে… ...

মেজাজ হারিয়ে তৃণমূল সমর্থকদের জুতো দেখাচ্ছেন শুভেন্দু, কুনালের পোস্টে ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: একসময় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ‘জয়শ্রীরাম’ ধ্বনি শুনে বিজেপি সমর্থকদের ওপর রেগে যেতেন। এবার ঠিক তার উল্টো ঘটনা ঘটতে শুরু করেছে রাজ্য রাজনীতিতে। মেজাজ হারিয়ে প্রকাশ্যে নিজের পায়ের জুতো হাতে তুলে তৃণমূলের সমর্থকদের দেখাচ্ছেন শুভেন্দু অধিকারী। আর সেই ভিডিও ইতিমধ্যে ভাইরাল করেছেন তৃণমূল নেতা কুনাল ঘোষ। যদিও ভিডিওর সত্যতা যাচাই করা হয়নি। টুইটে কুণাল… ...