ডার্বি ম্যাচের আগে মনোবিদ নিয়োগ, আইএসএলে খেতাব জিতলেও এএফসি চ্যাম্পিয়ন লিগে খেলা অনিশ্চিত এসসি ইস্টবেঙ্গলের

ফুটবলারদের মানসিকতায় চাপ কমাতেই এই উদ্যোগ নিয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। ইংল্যান্ডের ক্রীড়া মনােবিদ নিকোলা ম্যাকলিগকে নিয়ােগ করা হয়

Written by SNS Goa | November 21, 2020 12:55 pm

এসসি ইস্টবেঙ্গল (ছবিঃSNS)

জাতীয় স্তরের ফুটবল লিগে খেলতে আর কোনও বাধা থাকছে না এই মরশুমে এসসি ইস্টবেঙ্গলের। আইএসএল ফুটবল টুর্নামেন্টে খেলা পাঁচটি ক্লাব এআইএফএফের লাইসেন্স পরীক্ষায় পাশ করতে পারেনি, তাদের ছাড়পত্র দেওয়া হল খেলার জন্য। সেই কারণে অংশ নেওয়াতে অসুবিধা হবে না। তবে আন্তর্জাতিক স্তরের টুর্নামেন্টে খেলার ছাড়পত্র পায়নি এসসি ইস্টবেঙ্গল, ওড়িশা এফসি, কেরল ব্লাস্টার্স হায়দরাবাদ এফসি ও নর্থইস্ট ইউনাইটেড।

নিয়ম অনুসারে আইএসএল চ্যাম্পিয়ন দল সরাসরি এএফসি চ্যাম্পিয়ন লিগে খেলার সুযােগ পাবে। আর আইলিগ খেতাব জয়ী দল এএফসি কাপে খেলতে পারবে। যদি আইএসএল ফুটবলে প্রথম খেলার সুযােগ পেয়ে এসসি ইস্টবেঙ্গল শিরােপা দখল কতে পারে, তখন এএফসি চ্যাম্পিয়ন লিগে খেলার সুযােগ হাতছাড়া হতে পারে। তার কারণ হল ফেডারেশনের লাইসেন্স পেতে হলে পাঁচটি শর্ত পূরণ করতে হয়।

কিন্তু সেই শর্ত এখনও পূরণ করতে ব্যর্থ এসসি ইস্টবেঙ্গল। তবে এটিকে মােহনবাগান আগে লাইসেন্স পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছে। এসসি ইস্টবেঙ্গল সহ পাঁচটি দলই চলতি মরশুমে খেলার অনুমতি দিতে ফেডারেশনের কাছে আবেদন করে। তার পরে এআইএফএফে পক্ষ থেকে পাঁচটি ক্লাবকে আইএসএল সহ জাতীয় স্তরের ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নেওয়া ছাড়পত্র দেওয়া হয়। এই খবরে লালহলুদ শিবিরে খুশির হাওয়া বইতে থাকে।

এদিকে বাঙালির চিরন্তন ডার্বিকে ঘিরে দুই প্রধানের সমর্থকদের উন্মাদনা শুরু হয়ে গিয়েছে। আইএসএল ফুটবলে নামার আগে বড় চমক দিল ইস্টবেঙ্গল। লালহলুদ শিবিরে নিয়ােগ করা হল একজন বিদেশি মনােবিদকে। করােনা আবহাওয়ায় এবং জৈব সুরক্ষা নিয়ে কড়া নিরাপত্তার মধ্যে রয়েছেন ফুটবলাররা। ফুটবলারদের মানসিকতায় চাপ কমাতেই এই উদ্যোগ নিয়েছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। ইংল্যান্ডের ক্রীড়া মনােবিদ নিকোলা ম্যাকলিগকে নিয়ােগ করা হয়।

এমনকি, তিনি কাজ শুরু করে দিয়েছেন। সপ্তাহের দুই থেকে তিনদিন অনুশীলন শেষে ফুটবলারদের ক্লাস করাচ্ছেন ভিডিও কলের মাধ্যমে। কোচ রবি ফাওলারের কথা মতাে লিভারপুল বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রীড়া মনােবিদ নিকোলাকে নিয়ােগ করা হয়েছে। আসলে ফুটবলারদের মানসিক চাপ কমানােই প্রধান উদ্দেশ্য।

এসসি ইস্টবেঙ্গলের খেলােয়াড়দের ঘােষণা হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সবার মধ্যে একটা আলাদা উৎসাহ লক্ষ্য করা যাচ্ছে। কোচ রবি ফাওলারের প্রশিক্ষণে তারা কোথায় যেন একটা যাদু খুঁজে পাচ্ছেন। যেহেতু ডার্বি ম্যাচের মধ্যে দিয়ে এসসি ইস্টবেঙ্গলের অভিযান শুরু হবে, তাই আইএসএল ফুটবল টুর্ণামেন্টে সবার মানসিকতায় একটা চ্যালেঞ্জিং ব্যাপারটা দেখতে পাওয়া যাচ্ছে। কোচ সবাইকে অনুপ্রাণিত করছেন সেরা খেলাটা উপহার দিতে। বাড়তি সুযােগ পেয়ে যাচ্ছেন কোচ ও ফুটবলাররা মােহ্নবাগানের খেলাটা দেখা।

কোচ হবাস কীভাবে খেলােয়াড়দের প্রতিপক্ষ দলের বি পক্ষে লড়াই করার ছকটা তৈরি করছেন, তা স্পষ্ট হওয়াতে এসসি ইস্টবেঙ্গলের কোচ রবি ফাওলার নিশ্চয়ই গােপন ছক তৈরি করবেন। সেই কৌশলে এটিকে মােহনবাগানকে চাপে রেখে প্রথম সাক্ষাৎকারে বাজিমাত করতে চান। অবশ্য শেষ পর্যন্ত কোন কোচ জয়ের হাসি হাসবেন, তার জন্য অপেক্ষা করতে হবে।