জলপাইগুড়িতে দুর্যোগ নিয়ে মোদির ভূমিকায় ক্ষুব্ধ মমতা

Written by SNS April 6, 2024 12:23 pm

অর্ণব সাহা, জলপাইগুড়ি, ৫ এপ্রিল– ঝডে় ক্ষতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তাঁর প্রশ্ন, জলপাইগুডি় ও আলিপুরদুয়ারের ঝডে় ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য কোথায় গেল মোদির গ্যারান্টি? শুক্রবার জলপাইগুডি়র এবিপিসি মাঠে লোকসভা নির্বাচনের প্রচারে জনসভা করেন মমতা বন্দোপাধ্যায়৷ সেই সভার মঞ্চ থেকেই তিনি এই প্রশ্ন তোলেন৷

গত রবিবার বিকেলে আচমকা ঝডে় জলপাইগুডি় ও আলিপুরদুয়ারে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়৷ বেশ কয়েকজনের মৃতু্য হয়৷ আহত হন অনেকে৷ রবিবার রাতেই জলপাইগুডি় হাসপাতালে পৌঁছে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ঘটনাস্থলেও যান তিনি৷ ঘটনার পর সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে এই নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ কিন্ত্ত বৃহস্পতিবার কোচবিহারের জনসভা থেকে প্রধানমন্ত্রী এই নিয়ে কোনও কথা বলেননি৷ শুক্রবার সেই ইসু্যটিকে সামনে রেখেই সরব হন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷
তিনি বলেন, এখানে প্রধানমন্ত্রী এলেন৷ তিনি অনেক বিরুদ্ধে কথা বলেছেন৷ জলপাইগুডি়-আলিপুরদুয়ারের কথা বলেননি৷ সেখানে মোদির গ্যারান্টি কোথায় গেল? পাশাপাশি মোদির গ্যারান্টি নিয়ে কটাক্ষও করেন তিনি৷ মমতার কথায়, সংবিধান ভেঙে দেওয়া, দেশ থেকে আম্বেদকর-গান্ধিজিদের নাম মুছিয়ে দেওয়া এবং দেশ বিক্রি করে দেওয়াই মোদির গ্যারান্টি৷

পাশাপাশি সেদিনের ঘটনার পর একজন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তিনি কী কী পদক্ষেপ করেছেন, সেই প্রসঙ্গও তুলে ধরেন মমতা৷ তিনি বলেন, জলপাইগুডি় ও আলিপুরদুয়ারে ঝডে়র পর তিনি রাতেই চলে আসেন জলপাইগুড়ি, হাসপাতালে যান৷ পরে ঘটনাস্থলে যান৷ ওই ঘটনার পর জলপাইগুডি় জেলা হাসপাতালের ভূমিকার প্রশংসাও করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি আরও বলেন, ঝডে় ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় অনেক বাডি় তছনছ হয়ে গিয়েছে৷ রাজ্য সরকার বাডি় তৈরি করে দিতে তৈরি৷

তিনি বলেন, ‘‘নির্বাচন চলছে বলে এমসিসি-র আওতায় আমরা আছি৷ তাই সবকিছুতেই নির্বাচন কমিশনের অনুমতি নিতে হবে৷ আজ যদি নির্বাচন না থাকত, তাহলে আমি এক সেকেন্ডে বাডি়গুলোর টাকা দিয়ে দিতাম৷ টাকা আমাদের আছে৷ টাকা প্রশাসন তৈরিও রেখেছে৷ কিন্ত্ত নির্বাচন কমিশনে চিঠি পাঠানো হয়েছে অনুমতি নেওয়ার জন্য৷’’

এরপরই তিনি এই ইসু্যতে তোপ দাগেন বিজেপির বিরুদ্ধে৷ মমতা বলেন, ‘‘আমি নির্বাচন কমিশনের কাছে অনুরোধ করব, বিজেপির কথা শুনে দেরি করবেন না৷ মানুষগুলো আশ্রয়হীন অবস্থায় আছে৷ টাকা আছে৷ আপনারা শুধু অনুমতি দিন৷’’