মুম্বইয়ে পথচারীদের হাতে আক্রান্ত হলেন অভিনেত্রী রবিনা ট্যান্ডন

Written by SNS June 2, 2024 6:51 pm

মুম্বই, ২ জুন– গতকাল মধ্যরাতে মুম্বইয়ের রাস্তায় চাঞ্চল্যকর ঘটনা। পথচারীদের হাতে আক্রান্ত হলেন বলিউড অভিনেত্রী রাবিনা ট্যান্ডন। তাঁকে নিয়ে হেনস্থা করা হয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় সেলেব্রিটিদের নিরাপত্তা এবং তাঁদের জীবন যাপন নিয়েও একাধিক প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। জানা গিয়েছে, গতকাল মাঝরাতে মুম্বইয়ের কার্টার রড ধরে খুব সাদামাঠাভাবে গাড়িতে করে ফিরছিলেন অভিনেত্রী রবিনা। অভিযোগ ওঠে সেখানে রিজভী ল কলেজের সামনে তাঁর গাড়ির চালক এক পথচারী বয়স্ক মহিলাকে ধাক্কা মারে। এরপরই তিন মহিলা পথচারী তাঁর গাড়ি থামিয়ে চড়াও হন। ওই মহিলাদের অভিযোগ, অভিনেত্রীর গাড়ি তাঁদের ধাক্কা মেরেছে। তাঁর গাড়িতে ধাক্কা লেগে এক মহিলার কানে রক্তপাত হয়েছে বলে অভিযোগ।

ঘটনার পর গাড়ি থামিয়ে রাস্তায় নেমে আসেন গাড়ির চালক। তাঁকে ঘিরে ধরে ওই মহিলারা বিক্ষোভ দেখতে শুরু করেন। কিন্ত চালকের ওপর ক্ষুব্ধ হন ওই মহিলারা কোনও কথা শুনতে নারাজ। এরপর বিষয়টি থামাতে গাড়ি থেকে নেমে আসেন রবিনা। তিনি বিষয়টি নিয়ে ক্ষমা চেয়ে মেটাবার চেষ্টা করেন। তা সত্ত্বেও তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। অভিনেত্রীর ওপর রীতিমতো চড়াও হন ওই মহিলারা। তাঁর হাত ধরে টানাটানি করতে থাকেন। এমনকি তাঁকে মারতেও যান বিক্ষুব্ধরা। তখন অভিনেত্রী ভয় পেয়ে যান। চারপাশে লোকজন ঘিরে ধরতেই বার বার তাঁকে না মারার অনুরোধ করেন অভিনেত্রী। তিনি কাতর কণ্ঠে অনুরোধ করে বলেন, ‘‘আমাকে ধাক্কা দেবেন না, দয়া করে আমাকে মারবেন না।’’ কিন্তু বিষয়টি থামাতে কেউ এগিয়ে আসেননি। বরং উপস্থিত সকলে ঘটনার ভিডিও মোবাইলে ক্যামেরাবন্দি করতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন। যাঁরা ভিডিও করছিলেন, তাঁদের একজনকে ভিডিও করতেও নিষেধ করেন অভিনেত্রী। ইতিমধ্যে এই ঘটনার ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এদিকে ওই মহিলারা এখানেই থেমে থাকেননি। রবিনাকে হেনস্তার পর স্থানীয় খার থানায় গিয়ে অভিযোগও দায়ের করেন। তাঁদের অভিযোগ, ওই চালক মদ্যপ অবস্থায় গাড়ি চালাচ্ছিলেন।

অন্য একটি সংবাদ সংস্থা সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিনার চালক বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালাচ্ছিলেন। যার ফলে কার্টার রোডে তিনজনকে ধাক্কা মারে। কিন্তু প্রথমে অভিনেত্রী গাড়ি থেকে নেমে বিষয়টির ব্যাপারে ক্ষমা না চেয়ে ওই পথচারীদের ওপর চোটপাট শুরু করেন। এতেই ক্ষেপে যান পথচারীরা। তাঁরা অভিনেত্রীর ওপর তেড়ে এলে তখন তিনি ক্ষমা চাইতে থাকেন। এবং তাঁকে না মারতে অনুরোধ করেন।