‘এক্সিট পোল নয়, এসব মোদি মিডিয়া পোল ‘  বুথ ফেরত সমীক্ষাকে তীব্র কটাক্ষ রাহুলের 

Written by SNS June 2, 2024 7:28 pm

দিল্লি , ২ জুন – লোকসভা ভোটের বুথ ফেরত সমীক্ষা ফ্যুৎকারে উড়িয়ে দিল কংগ্রেস।  এক্সিট পোলকে সরাসরি আক্রমণ করে রবিবার রাহুল গান্ধি বলেন, ‘এর নাম এক্সিট পোল নয় , এর নাম মোদি মিডিয়া পোল।’  তিনি বলেন, যে বুথ ফেরায় সমীক্ষা বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে তুলে ধরা হচ্ছে তা কাল্পনিক।শুধু তাই  নয়, কংগ্রেসের বিভিন্ন রাজ্যের নেতারাও নিজেদের মতো করে নিজেদের রাজ্যের পরিসংখ্যান তুলে ধরে বুথ ফেরত সমীক্ষা খারিজ করছেন।

 
দেশের সংবাদমাধ্যমগুলির এক্সিট পোল প্রকাশ হওয়ার পরদিন অর্থাৎ রবিবারই এই বৈঠকে বসে কংগ্রেস নেতৃত্ব। সবকটি বুথ ফেরত সমীক্ষাতেই উঠে আসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি টানা তৃতীয়বারের জন্য ক্ষমতায় আসছেন। এদিন কংগ্রেস সদর দপ্তরে রাহুলকে বুথফেরত সমীক্ষা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি হাসতে হাসতে জবাব দেন, ‘এটি মোদিজির ফ্যান্টাসি পোল। আপনি কী শুনেছেন সিধু মুসেওয়ালার গান ? সিধু মুসেওয়ালার একটা গান আছে ২৯৫। আমরা ২৯৫ আসন পাব ।”
 
 
একথা বলেই চলে যান রাহুল গান্ধি। এর বেশি তিনি কিছু বলেননি। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের প্রশ্ন, তবে কি এবার ইন্ডিয়া জোট ২৯৫টি আসন পাবে ?  রাহুল গান্ধি এদিন কী সেই ইঙ্গিত দিলেন ? সব মিলিয়ে এক্সিট পোলের ফলাফলকে কেন্দ্র করে নতুন করে জল্পনা শুরু হয়েছে। রাজনৈতিক মহল থেকে শুরু করে আমজনতা তাকিয়ে আছে ইন্ডিয়া জোট কত পেতে পারে সেই দিকে । এদিকে ইন্ডিয়া জোটের বিভিন্ন শরিকরা দাবি করছে যে তারাই সরকার তৈরি করবে।
 
এই প্রসঙ্গে কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক কে সি ভেনুগোপাল বলেন, ‘ আমরা আমাদের রাজ্য সভাপতি, মুখ্যমন্ত্রী, পর্যবেক্ষক এবং প্রার্থীদের সঙ্গে আলোচনা করেছি। তারা সবাই আত্মবিশ্বাসী। এই এক্সিট পোল ভুয়ো। ইন্ডিয়া জোট ২৯৫ টি আসন পাবে এবং অবশ্যই কেন্দ্রে সরকার গঠন করবে। ‘
 
জয়রাম রমেশ বলেন, ‘এই বুথফেরত সমীক্ষাগুলির ফলাফল মিথ্যা। ইন্ডিয়া জোট ২৯৫টির বেশি আসন পাবে। এইসব বুথফেরত সমীক্ষাগুলি ভুয়ো। কারণ প্রধানমন্ত্রী মোদি ও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ মনস্তাত্বিক খেলা খেলছেন। বিরোধী দল, নির্বাচন কমিশন, কাউন্টিং এজেন্ট, রিটার্নিং অফিসারদের উপর চাপ সৃষ্টির চেষ্টা করছেন। এমন পরিস্থিতি তৈরি করছেন যেন মনে হয় ফের ওঁরাই ক্ষমতায় ফিরছেন। কিন্তু বাস্তব পরিস্থিতি সম্পূর্ণ ভিন্ন।’
 
কংগ্রেসের তরফে একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানে বিভিন্ন রাজ্যের প্রদেশ সভাপতি তথা শীর্ষ নেতারা নিজেদের রাজ্যের পরিস্থিতি এবং দলের আভ্যন্তরীণ সমীক্ষা তুলে ধরেছেন। কর্নাটকের উপমুখ্যমন্ত্রী তথা প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি ডিকে শিবকুমার দাবি করেছেন, “ সেখানে  কংগ্রেস দুই-তৃতীয়াংশ আসন পাবে।” রাজস্থানের প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি গোবিন্দ সিং ডোটাসরা দাবি করেছেন , মরুরাজ্যে কংগ্রেস ১১-১২ আসনে জিতবেই।মোট ২৫ আসনের মধ্যে বিজেপির থেকে বেশি আসন পাওয়ার দাবি করেছেন তিনি। তেমনি মহারাষ্ট্রের প্রদেশ সভাপতি নানা পাটোলে দাবি করেছেন, সেরাজ্যে ইন্ডিয়া জোট ৩৮-৪০ আসন জিতবে। এভাবেই কংগ্রেসের বিভিন্ন রাজ্যের নেতারা এক্সিট পোল খারিজ করে দেন ।
 
অন্যদিকে মোদি এক্স হ্যান্ডেলে লিখেছেন, আমি পূর্ণ আস্থার সঙ্গে জানাচ্ছি যে ভারতবাসী এনডিএ সরকারকে ক্ষমতায় আনতে ভোট দিয়েছেন, এনডিএ রেকর্ড ভোট পাবে। তারা আমাদের ট্র্যাক রেকর্ড দেখেছেন। কীভাবে গরীব, প্রান্তিক ও অসহায় মানুষদের জীবনে  বদল ঘটাতে আমরা কাজ করেছিতা তা  তাঁরা দেখেছেন। ভারতকে বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ হিসাবে গড়ে তুলতে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।