করােনা আবহে গুজরাতে বন্ধ গারবা, কাটছাঁট নবরাত্রি উৎসবেও

করােনা প্রভাব পড়েছে সব অনুষ্ঠানে। মহারাষ্ট্রের গণপতি উৎসব থেকে শুরু করে ঈদ, সব কিছুই এবার করতে হয়েছে অনেক কম আড়ম্বরে। মানতে হয়েছে একাধিক নিয়ম।

Written by SNS Ahmedabad | October 11, 2020 10:49 pm

প্রতিকি ছবি (Photo: iStock)

করােনা প্রভাব পড়েছে সব অনুষ্ঠানে। মহারাষ্ট্রের গণপতি উৎসব থেকে শুরু করে ঈদ, সব কিছুই এবার করতে হয়েছে অনেক কম আড়ম্বরে। মানতে হয়েছে একাধিক নিয়ম। সামনেই বাঙালির শ্রেষ্ঠ উৎসব দুর্গাপুজো ঘিরেও একাধিক নির্দেশিকা জারি হয়েছে। এর মধ্যেই আবার গুজরাত সরকারের তরফে জানিয়ে দেওয়া হল নবরাত্রি উপলক্ষ্যে হওয়া গারবা এবার বন্ধ থাকবে। এমনকী নবরাত্রি উৎসবেও অনেক কাটছাট করা হয়েছে। 

গুজরাত সরকারের তরফে জানানাে হয়েছে, আগামী ১৬ অক্টোবর থেকে এই নির্দেশিকা কার্যকর হবে। এই নির্দেশিকায় স্পষ্ট বলা হয়েছে, করােনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে চলতি বছরে গুজরাতে কোনও গারবা অনুষ্ঠানের আয়ােজন করা যাবেনা। ছােট-বড়-মাঝারি সব ধরনের আয়ােজনের জন্যই এই নির্দেশ। কারণ গারবা অনুষ্ঠানে অনেক বেশি সংখ্যায় মানুষ অংশ নেন। তাই সেখানে সংক্রমণ ছড়ানাের আশঙ্কা রয়েছে। 

বিজয় রূপানি সরকারের তরফে আরও জানানাে হয়েছে- নবরাত্রি উৎসবে পুজো করা যাবে। কিন্তু সেখানেও অনেক কাটছাঁট করা হয়েছে। যেমন প্রতিমা কেউ স্পর্শ করতে পারবেন না। প্রসাদ বিতরণ করা যাবে না। একসঙ্গে কোথাও বেশি লােকের জমায়েত করা যাবে না। দর্শনার্থীদের মাস্ক পরে আসতে হবে। এছাড়া পুজো মণ্ডপ যাতে স্যানিটাইজ করা থাকে, সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে উদ্যোক্তাদের। 

শুধু নবরাত্রি নয়, দুর্গাপুজো, দশেরাতেও এই নিয়ম মেনে চলতে হবে বলে জানানাে হয়েছে। প্রতি বছর নবরাত্রি ও দশেরা উপলক্ষে ছােটবড় নানা উৎসবের আয়ােজন করা হয় গুজরাত জুড়ে। এবছর তাতেও কাটছাঁট করা হবে বলে জানানাে হয়েছে। নির্দেশিকায় বলা হয়েছে কন্টেইনমেন্ট এলাকাগুলি বাদ দিয়ে এই সব অনুষ্ঠান করা যেতে পারে। কিন্তু আকারে তা ছােট হতে হবে। শুধু তাই নয়, মেনে চলতে হবে কেভিড সংক্রান্ত সব নিয়ম।