ভোটের আগে একাধিক হামলায় উত্তপ্ত জম্মু ও কাশ্মীর, ফারুক আবদুল্লার প্রচার মিছিলে ছুরি নিয়ে হামলা

Written by SNS May 19, 2024 9:09 pm

শ্রীনগর, ১৯ মে –  জম্মু ও কাশ্মীরে ফারুক আবদুল্লার নির্বাচনী প্রচারে ছুরি নিয়ে হামলা। রবিবার এই ঘটনা ঘটে জম্মু ও কাশ্মীরের পুঞ্চ জেলা। ঘটনাটি ঘটে পুঞ্চের মেনধর এলাকায়। রোড-শোয় উপস্থিত ছিলেন ন্যাশনাল কনফারেন্স দলের প্রধান তথা জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লা। উপস্থিত ছিলেন অনন্তনাগের ন্যাশনাল কনফারেন্স প্রার্থী মিয়াঁ আলতাফ রাজৌরিও।রোডশো চলাকালীন অজ্ঞাত পরিচয় হামলাকারীরা  ছুরি নিয়ে হামলা চালায় ন্যাশনাল কনফারেন্স দলের কর্মীদের উপর। এই ঘটনায় অন্তত তিনজন আহত হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে।আহতরা সকলেই ন্যাশনাল কনফারেন্স দলের কর্মী বলে জানা গিয়েছে। ঘটনার পরপরই আহতদের মেনধর মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিৎসকরা জানান, আহতদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাদের রাজৌরির সরকারি মেডিকেল কলেজে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়।  ।

ফারুকের দল ন্যাশনাল কনফারেন্সের কর্মসূচিতে আচমকাই হামলার ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ।জানা গিয়েছে, রবিবার অনন্তনাগ-রাজৌরি লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত পুঞ্চ বিধানসভা কেন্দ্রে রোড-শো এবং জনসভার আয়োজন করেছিল ন্যাশনাল কনফারেন্স। সেই কর্মসূচির মধ্যেই হামলার ঘটনা ঘটে। যে সময় এই ঘটনা ঘটে তখন অনন্তনাগ-রাজৌরি লোকসভা কেন্দ্রের দলীয় প্রার্থী মিয়াঁ  আলতাফের সমর্থনে জনসভায় ভাষণ দিচ্ছিলেন ফারুক।

পুলিশ সূত্রে খবর, আহতদের দ্রুত উদ্ধার করে প্রথমে মেনধার মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। আহতদের মধ্যে দু’জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাঁদের রাজৌরি মেডিক্যাল হাসপাতালে স্থানান্তরিত করানো হয়। ঘটনাকে কেন্দ্র করে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয় ফারুকের কর্মসূচিতে। রোড-শোতে হুড়োহুড়ি পড়ে যায় কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে।

কেন এই হামলা, তা এখনও স্পষ্ট নয়। আততায়ী একজন নাকি একাধিক তা নিয়েও বিভ্রান্তি রয়েছে। এই হামলার নেপথ্যে কোনও রাজনৈতিক অভিসন্ধি রয়েছে কি না তা-ও খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এই ঘটনাকে নিরাপত্তার গাফিলতি বলে দাবি করেছেন ন্যাশনাল কনফারেন্সের প্রাক্তন বিধায়ক জাভেদ রাণা। তাঁর কথায়, ‘‘নিরাপত্তার গাফিলতি তো ছিলই। আমাদের দলের যুবকদের উপর কেন এমন হামলা চালানো হল, তা পুলিশকে জানাতে হবে। অবিলম্বে আততায়ীকে গ্রেফতার করে তাঁর বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার আর্জি জানাচ্ছি।’’

এক পুলিশ আধিকারিক জানান, এই ঘটনার বিষয়ে অজ্ঞাতপরিচয় হামলাকারীদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।  ঘটনার তদন্ত হচ্ছে । এখন পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা যায়নি। তবে, অভিযুক্তদের ধরতে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ। এদিকে, এই ঘটনার প্রতিবাদে মেনধরের প্রধান চৌকিতে বিক্ষোভ দেখায়  ন্যাশনাল কনফারেন্স।

এদিকে ভোটের মধ্যেই জঙ্গি হামলা ঘটে কাশ্মীরের দুটি এলাকায়। বেড়াতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ হন এক পর্যটক দম্পতি। অন্য একটি ঘটনায় জঙ্গিদের গুলিতে মৃত্যু হয় বিজেপির স্থানীয় এক নেতার। দুটি ঘটনাকে ঘিরে নতুন করে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে এলাকায়।

সংবাদ সংস্থা সূত্রের খবর, শনিবার ঘটনাটি ঘটে দক্ষিণ কাশ্মীরের অনন্তনাগে পহেলগাঁওয়ের কাছে। ওই এলাকাটি পুলিশ এবং নিরাপত্তা বাহিনীর নজরদারির মধ্যে পড়ে। সেখানে পর্যটক দম্পতি গুলিবিদ্ধ হওয়ার ঘটনায়  নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে । জানা গিয়েছে , রাজস্থানের জয়পুরের বাসিন্দা ফারহা ও তাবরেজ কাশ্মীরে বেড়াতে গিয়েছিলেন। শনিবার সন্ধেয় জঙ্গিদের ছোড়া গুলিতে জখম হন ফারহা। স্ত্রীকে বাঁচাতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ হন তারবেজও। স্থানীয় হাসপাতালে তাঁদের চিকিৎসা চলছে।

অন্য এক ঘটনায় শোপিয়ানের হুরপোরা এলাকায় জঙ্গিদের গুলিতে মৃত্যু হয় শেখ আজাজ আহমেদ নামে এক বিজেপি নেতার। ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন ন্যাশনাল কনফারেন্স সভাপতি ফারুক আবদুল্লা এবং সহ-সভাপতি ওমর আবদুল্লা৷ দলীয় নেতার মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছে বিজেপি নেতৃত্ব ৷ তাঁর পরিবারের পাশে থাকার কথা জানিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে গেরুয়া শিবির ৷

আগামী ২০  মে লোকসভা নির্বাচনের পঞ্চম দফায় ভোট হতে চলেছে বারামুলা লোকসভা আসনে ৷আগামী ২৫ মে ভোট অনন্তনাগ-রাজৌরি আসনে। উল্লেখ্য, গত ৭ মে এই আসনে ভোট হওয়ার কথা ছিল ৷ কিন্তু আবহাওয়া পরিস্থিতি নিয়ে জম্মু ও কাশ্মীরের কয়েকটি রাজনৈতিক দল উদ্বেগ প্রকাশ করার পরে তা পিছিয়ে দেওয়া হয় । এই আবহে উপত্যকায় জোড়া জঙ্গি হামলায় চিন্তিত সকলে ৷ সোশাল মিডিয়ায় ঘটনার নিন্দা করেছেন রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা পিডিপি সভাপতি মেহেবুবা মুফতি ৷